আদিবাসীদের অধিকারে কেউ হস্তক্ষেপ করলে সরকার ‘কঠোর ব্যবস্থা’ নেবে- পূর্তমন্ত্রী

আদিবাসীদের অধিকারে কেউ হস্তক্ষেপ করলে সরকার ‘কঠোর ব্যবস্থা’ নেবে- পূর্তমন্ত্রী

বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বসবাসরত আদিবাসীদের ধর্ম ও সংস্কৃতি পালনের অধিকারে কেউ হস্তক্ষেপ করলে সরকার ‘কঠোর ব্যবস্থা’ নেবে বলে হুঁশিয়ার করেছেন গণপূর্তমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম।

শুক্রবার বিকালে রাজধানীর বনানীর সোয়াট মাঠে ঢাকাবাসী গারো সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী ‘ওয়ানগালা’ উৎসবে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

রেজাউল করিম বলেন, “হিন্দু মুসলিম বৌদ্ধ খ্রিস্টানদের পাশাপাশি বিভিন্ন জাতিসত্তার অধিকারে কেউ হস্তক্ষেপ করুক- এটা আমরা চাই না। যদি কেউ করে তাহলে তার বিরুদ্ধে সরকার কঠোর ব্যবস্থা নেবে। কোনোভাবেই কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।”

এ সময় পুলিশ ও প্রশাসনের কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করে তিনি বলেন, “প্রশাসনের যারা আছেন তাদেরকে অনুরোধ করব, প্রত্যেক জাতি গোষ্ঠী নিজস্ব সংস্কৃতি, কৃষ্টি পালনের ক্ষেত্রে তারা যেন কোনোভাবেই বাধার সম্মুখীন না হয়।”

সরকারী পৃষ্ঠপোষকতা দেওয়ার আশ্বাস জানিয়ে তিনি বলেন, “আপনাদের ভাষা সমৃদ্ধ করুন, ভাষার লিখিত অংশ যেন হারিয়ে না যায়। আপনাদের যত সংস্কৃতি তা যেন হারিয়ে না যায়,সরকার সকল পৃষ্ঠপোষকতা দেবে।”

“আপনাদের মনে রাখতে হবে, আপনাদের নিজস্ব জীবন সংস্কৃতি, কৃষ্টি ধারণ করে বাঙালি জাতিসত্তাকে ব্যবহার করতে হবে। আমরা চাই, গারোরা বিলীন হয়ে না যাক, তাদের সংস্কৃতি ধ্বংস না হোক।

‘ওয়ানগালা’ উদযাপন পরিষদের সভাপতি মুকুল চিছামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য আব্দুল বাসেত মজুমদার, কারিতাস ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটের পরিচালক থিওফিল নওরেক, গারো ওয়ানগালার নকমা (সমাজ প্রধান) সাগর রিছিল বক্তব্য দেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য