জনবান্ধব স্বাস্থ্য ব্যবস্থার সংগ্রামে মিলনের আদর্শে উদ্বুদ্ধ হতে হবে: বাংলাদেশ জাসদ

জনবান্ধব স্বাস্থ্য ব্যবস্থার সংগ্রামে মিলনের আদর্শে উদ্বুদ্ধ হতে হবে: বাংলাদেশ জাসদ

অবৈধ ক্ষমতা দখলকারী এরশাদের সামরিক সরকারের বিরুদ্ধে চূড়ান্ত গণঅভ্যুত্থান ও শহীদ ডা. শামসুল আলম খান মিলনের বীরোচিত আত্মদানের ২৯তম বার্ষিকী স্মরণে বাংলাদেশ জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-বাংলাদেশ জাসদ এর উদ্যোগে আজ ২৭ নভেম্বর ২০১৯ বুধবার বিকাল ৪টায় বাংলাদেশ শিশু কল্যাণ পরিষদ মিলনায়তনে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ জাসদ স্থায়ী কমিটির সদস্য ডা. মুশতাক হোসেন এবং সভা পরিচালনা করেন বাংলাদেশ জাসদের সাংগঠনিক সম্পাদক হোসাইন আহমেদ তফছির। বাংলাদেশ জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল – বাংলাদেশ জাসদ সাধারণ সম্পাদক জনাব নাজমুল হক প্রধান, স্থায়ী কমিটির সদস্য সর্বজনাব করিম সিকদার, মঞ্জুর আহমেদ মঞ্জু ও আনোয়ারুল ইসলাম বাবু;, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সভাপতি আবদুস সালাম খোকন, সাধারণ সম্পাদক জি এম রোস্তম খান, ঢাকা মহানগর পূর্ব সভাপতি আসাদুজ্জামান জাকির, সাধারণ সম্পাদক মোঃ মহিউদ্দিন, ঢাকা মহানগর উত্তর সভাপতি আলমগির হোসেন, বাংলাদেশের শ্রমিক জোট সভাপতি আবদুল কাদের হাওলাদার, সাবেক ছাত্রনেতা আহমেদ ফজলুর রহমান মুরাদ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগ – বিসিএল সাধারণ সম্পাদক গৌতম শীল সহ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

শহীদ ডা. মিলন ও এরশাদ স্বৈরশাসনের বিরুদ্ধে লড়াই করতে গিয়ে অন্যান্য যারা শহীদ হয়েছেন তাদের সকলের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বাংলাদেশ জাসদ নেতৃবৃন্দ বলেন, “ডা. মিলন যখন পেশাজীবী আন্দোলন ও গণতান্ত্রিক আন্দোলনে সংগঠকের ভূমিকা পালন করেছেন, তখন তারা গণমুখী স্বাস্থ্য ব্যবস্থার জন্য সংগ্রাম করেছেন। কিন্তু আজ হাসপাতালে দরিদ্র রোগীরা মানসম্মত স্বাস্থ্যসেবা পায়না। স্বাস্থ্যসেবা আজ দুর্নীতিগ্রস্থ। স্বাস্থ ব্যবস্থাকে জনবাদ্ধব করে গড়ে তোলার সংগ্রামের জন্য ডা. মিলনের আজ বড়ই প্রয়োজন।”

নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, ডা. মিলনের সংগ্রামে আপোষহীনতার উৎস ছিল আদর্শগত চেতনা। আজকে কততৃত্ববাদীতা, দুর্নীতি, সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে সংগ্রাম জোরালো হচ্ছে না আদর্শগত চেতনার দুর্বলতার কারণে। মিলনের আদর্শে নতুন প্রজন্মকে উদ্বুদ্ধ করতে হবে।”

এর পূর্বে বাংলাদেশ জাসদ নেতৃবৃন্দ ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ চত্বরে শহীদ ডা. মিলনের সমাধিতে ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ডা. মিলন স্মৃতিস্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন করেন। নেতৃবৃন্দের মধ্যে ছিলেন সর্বজনাব নাজমুল হক প্রধান, মুশতাক হেসেন, করিম সিকদার, মঞ্জুর আহমেদ মঞ্জু, আনোয়ারুল ইসলাম বাবু, বীণা শিকদার, হোসাইন আহমেদ তাফসির প্রমুখ। বিএমএ আয়োজিত স্মরণসভায় বক্তৃতা করেন বাংলাদেশ জাসদ সভাপতি জনাব শরীফ নুরুল আম্বিয়া ও মুশতাক হোসেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য