ছাত্রলীগ নেতা কেটে নিলেন দীঘিনালা সড়কের গাছ

ছাত্রলীগ নেতা কেটে নিলেন দীঘিনালা সড়কের গাছ

নিজস্ব প্রতিবেদক: দীঘিনালা-লংগদু সড়কের মেরুং ইউনিয়নের বোয়ালখালী এলাকার ২ কিলোমিটার জুড়ে বেশ কিছু গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী কিছু ব্যক্তি জানিয়েছেন, গত ১১ ফেব্রুয়ারী (মঙ্গলবার) দীঘিনালা উপজেলার মেরুং ইউনিয়নের উত্তর মেরুং ছাত্রলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর হোসেন রাজু স্থানীয় কর্তৃপক্ষের কোনো অনুমোদন ছাড়া কতগুলো মূল্যবান বৃক্ষ কেটে নেয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা আরো জানিয়েছেন, কেটে নেওয়া গাছগুলোর মধ্যে রয়েছে ১১ টি মেহগনি, ৪ টি তুলা গাছ, ৫ টি কড়ই গাছ, ৪ টি কাঁঠাল গাছ, ১ টি মাদাল গাছ, ১ টি ভাদী গাছ, ৩ টি সুরুজ গাছ ও ১ টি জাম গাছ সহ প্রায় ৩০ টি বড় বড় গাছ কেটে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। জানা যায়, কেটে নেওয়া এসব গাছগুলোর বাজারমূল্য কয়েক লক্ষ টাকা।

বিভিন্ন মাধ্যমে উক্ত খবর পেয়ে সড়ক বিভাগের স্থানীয় লোকজন কাটা গাছের গুড়ি উদ্ধারে গেলে ছাত্রলীগের অভিযুক্ত ঐ নেতা গাছের গুড়িগুলো ছড়িয়ে ফেলে বলেও প্রত্যক্ষদর্শী ।

এদিকে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে খাগড়াছড়ি সড়ক বিভাগের পক্ষ থেকেও। এ ব্যাপানে সড়ক ও জনপদ বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী রমেন চাকমা অভিযুক্ত জাহাঙ্গীর হোসের রাজুর ্িবরুদ্ধে দীঘিনালা থানায় লিখিতভাবে একটি সুনির্দিষ্ট অভিযোগ দাখিল করেছেন।

কিন্তু প্রশানের পক্ষ থেকে এখনো কোনো প্রকার কার্যকর পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি বলে জানা যায়। দীঘিনালা থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) উত্তম চন্দ্র দেব অভিযোগটির বিষয়ে অবগত থাকার কথা বলে জানান, অভিযুক্তের বিষয়ে উক্ত ব্যাপারটি তদন্তের অধীনে।প্রমাণ সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। এদিকে স্থানীয় লোকজন ও পরিবেশ সংরক্ষণ নিয়ে কাজ করা সংগঠনের অনেকেই এভাবে নির্বিচারে গাছ কেটে ফেলায় পরিবেশ বিপর্যয়ের শঙ্কা জানিয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের দাবী জানিয়েছেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য