২৩ এপ্রিল রাঙামাটি জেলায় সকাল-সন্ধ্যা সড়ক নৌপথ অবরোধের ডাক

২৩ এপ্রিল রাঙামাটি জেলায় সকাল-সন্ধ্যা সড়ক নৌপথ অবরোধের ডাক

রাঙামাটি প্রতিনিধিঃ রাঙামাটির নানিয়াচর উপজেলার কলেজ ছাত্র রমেল চাকমাকে হত্যার প্রতিবাদ ও দোষীদের শাস্তির দাবীতে আগামী ২৩ এপ্রিল রাঙামাটি জেলায় সকাল-সন্ধ্যা সড়ক অবরোধসহ তিন দিনের লাগাতার কর্মসূচি দিয়েছে পার্বত্য আঞ্চলিক দল ইউপিডিএফ (ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট) সমর্থিত ছাত্র সংগঠন বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি)।
অন্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ২৫ এপ্রিল রাঙামাটি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সম্মুখে অবস্থান ধর্মঘট ও ২৬ এপ্রিল নানিয়াচর সদর বাজার বয়কট।
সংগঠনটির দপ্তর সম্পাদক রোনাল চাকমার স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই কর্মসূচি দেয় পিসিপি। বিবৃতিতে বলা হয়, গত ৫ এপ্রিল সকালে নানিয়াচর সরকারি কলেজের এইচএসসি পরীক্ষার্থী ও পিসিপি নানিয়াচর থানা শাখার সাধারণ সম্পাদক রমেল চাকমাকে নানিয়াচর সেনা জোনের কমান্ডার বাহালুল আলম ও মেজর তানভীরের নেতৃত্বে সেনা সদস্যরা উপজেলা পরিষদ এলাকা থেকে আটক করে নানিয়াচর জোনে নিয়ে গিয়ে মধ্যযুগীয় কায়দায় দিনভর অমানুষিক নির্যাতন চালায়। এতে রমেল চাকমা গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে সেনাসদস্যরা আহত অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে সেনা নজরদারি ও পুলিশের প্রহরায় দুই সপ্তাহ ধরে চিকিৎসাধীন থাকার পর গত বুধবার রমেল চাকমা মারা যায়।
পিসিপির এ কর্মসূচি ও দাবির প্রতি সমর্থন জানিয়েছে গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম এবং পার্বত্য চট্টগ্রামের পাঁচ নারী সংগঠন হিল উইমেন্স ফেডারেশন, পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘ, ঘিলাছড়ি নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি, সাজেক নারী সমাজ ও নারী আত্মরক্ষা কমিটি।
বিবৃতিতে সেনা হেফাজতে নির্যাতনের পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় রমেল চাকমার মৃত্যুর জন্য দায়ী জোন কমান্ডার মোঃ বাহালুল আলম, মেজর তানভীরসহ জড়িত সেনাসদস্যদের দৃষ্টান্তদমূলক শাস্তি; ঘটনা তদন্তের জন্য সুষ্ঠু, স্বাধীন ও নিরপেক্ষ বিচার বিভাগীয় তদন্ত; নিহতের পরিবারকে উপযুক্ত ক্ষতিপূরণ প্রদান ও পার্বত্য চট্টগ্রামে অন্যায় ধরপাকড়, নির্যাতন ও তল্লাশির নামে হয়রানি বন্ধ করার দাবী জানায় পিসিপি।
এদিকে শুক্রবার দুপুরে রমেল চাকমার মরদেহ জোর করে দাহ করার প্রতিবাদে দুপুর আড়াই টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত রাঙামাটি-খাগড়াছড়ি আঞ্চলিক সড়ক অবরোধ করে রমেল চাকমা হত্যার প্রতিবাদ কমিটির নেতাকর্মীরা। এসময় সড়কের উপর গাছের গুড়ি ফেলে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন তারা। এসময় বেশ কয়েকটি গাড়ি ভাংচুর করে। খবর পেয়ে কয়েকটি জীপ যোগে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা সড়ক অবরোধকারীদের সরিয়ে দেয়।
রমেল হত্যার প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার রাঙামাটি ও খাগড়াছড়ির কয়েকটি এলাকায় বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে পিসিপি নেতাকর্মীরা।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য