ইমরানের গাড়িতে হামলা

ইমরানের গাড়িতে হামলা

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে ‘কটূক্তি’ করে স্লোগান দেওয়ার অভিযোগে মানহানির মামলায় হাজিরা দিতে গিয়ে হামলার স্বীকার হয়েছেন গণজাগরণ মঞ্চের মুখপাত্র ইমরান এইচ সরকার ও সমর্থকরা।

জামিন নিয়ে আদালত থেকে বের হয়ে যাওয়ার সময় বাদীর উপস্থিতিতে তাদেরকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছোড়া হয় বলে দাবি করেছেন ইমরান। তবে বাদী ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক গোলাম রাব্বানীর দাবি, ‘ইট না, পচা ডিম ছোড়া হয়েছে তার গাড়িকে লক্ষ্য করে।’

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেছেন, হাজিরা দিয়ে ব্যক্তিগত গাড়িতে করে বের হওয়া মাত্র বেশ কয়েকজন যুবক গাড়ি লক্ষ্য করে ইটপাটকেল মারতে থাকে। এ ঘটনায় আইনজীবী ও বিচারপ্রার্থী অন্যদের মধ্যে শঙ্কার সৃষ্টি হয়।

প্রসঙ্গত, সুপ্রিম কোর্ট প্রাঙ্গণ থেকে ভাস্কর্য সরানোর প্রতিবাদে ২৬ মে মিছিল থেকে শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে ‘কটূক্তি’ করে স্লোগান দেওয়ার অভিযোগ এনে মামলা করেন ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক গোলাম রাব্বানী। মামলার অপর আসামি হলেন স্লোগানে অংশগ্রহণকারী সনাতন উল্লাস।

এদিকে, আজ রবিবার (১৬ জুলাই) দুজনই জামিন নিতে আদালতে হাজির হলে আদালত তাদের জামিন মঞ্জুর করেন।

হামলার বিষয়ে জানতে চাইলে ইমরান এইচ সরকার বলেন, ‘বাদী গোলাম রাব্বানীর উপস্থিতিতে ছাত্রলীগের কর্মীরা আদালত প্রাঙ্গণে আমার গাড়ির ওপর হামলা করে।গাড়ি চলতে শুরু করার সঙ্গে সঙ্গেই তারা লাঠিসোটা ইট-পাটকেল নিয়ে এলোপাতাড়ি আক্রমণ করে।’

তিনি আরও বলেন,‘রাস্তায় প্রতিবাদ করলে মামলা হবে। সেই মামলায় আদালতে গেলে সন্ত্রাসী হামলা হবে। মত প্রকাশের স্বাধীনতা তো অনেক দূরের গল্প। আদালতে যদি না যান তাহলে সেটা অবমাননা হবে।এটুকু নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে না পারলে ডাকে কেন?’

এ বিষয়ে মামলার বাদী গোলাম রাব্বানী বলেন, ‘এই ইমরান এইচ সরকারকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করেছি আগেই। যতক্ষণ পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রীর কাছে সে ক্ষমা না চাইবে, ততক্ষণ পর্যন্ত তাকে যেখানেই দেখা যাবে পচা ডিম মারা হবে। সেই অনুযায়ী জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের ছেলেরা তাকে পচা ডিম মেরেছে,কোনও শারীরিক হেনস্থার ঘটনা ঘটেনি।’

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য