ইউনূস সেন্টার কর্তৃক আয়োজিত আন্তর্জাতিক সম্মেলনের অনুমতি দেয়া হয় নি

ইউনূস সেন্টার কর্তৃক আয়োজিত আন্তর্জাতিক সম্মেলনের অনুমতি দেয়া হয় নি

ইউনূস সেন্টার আয়োজিত ‘সপ্তম আন্তর্জাতিক সামাজিক ব্যবসা দিবস ২০১৭’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক সম্মেলনের অনুমতি দেয়নি পুলিশ। অল্প সময়ে সম্মেলনের নিরাপত্তা প্রস্তুতি সম্পন্ন করা সম্ভব না বলেই ২৮ ও ২৯ জুলাই আশুলিয়ার ইউনুস সেন্টারে অনুষ্ঠিতব্য এই সম্মেলনের অনুমতি দেওয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন পুলিশের আইজি এ কে এম শহীদুল হক। তিনি বলেন, ‘সার্বিক নিরাপত্তা প্রস্তুতি ছাড়া বড় ধরনের কোনও আন্তর্জাতিক সম্মেলনের অনুমতি দেওয়া হয় না। তা সম্ভবও না। এর সঙ্গে সরকারের কোনও সম্পৃক্ততা নেই।’
বৃহস্পতিবার (২৭ জুলাই) পুলিশ সদর দফতরে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়ের সময় আইজিপি এ কে এম শহীদুল হক এসব কথা বলেন। এসময় তিনি জানান, ইউনূস সেন্টারের পক্ষ থেকে গত ২৪ জুলাই এই সম্মেলনের কথা জানানো হয়েছে পুলিশকে। ইউনুস সেন্টারের পক্ষ থেকে জানানো হয়, এই সম্মেলনে ৩৬টি দেশ ও সংস্থার প্রতিনিধি অংশ নেবেন। জাতিসংঘের একজন সহকারী মহাসচিব ছাড়াও বিশ্ব অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ও একটি দেশের রাজারও এই সম্মেলনে উপস্থিত থাকার কথা বলা হয়েছিল।
আইজিপি বলেন, ‘এরকম একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলনের মাত্র তিন-চার দিন আগে নিরাপত্তার জন্য কেবল ঢাকা জেলার পুলিশ সুপারকে অবহিত করা হয়েছে। ঊর্ধ্বতনরা এ বিষয়ে কেউ কিছুই জানেন না। এত কম সময়ে এমন একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলনের নিরাপত্তা প্রস্তুতি সম্পন্ন করা সম্ভব নয় বলেই তাদেরকে সম্মেলন আয়োজনের অনুমতি দেওয়া যায়নি। তবে সময় নিয়ে আয়োজন করতে চাইলে পুলিশ অনুমতি দেবে।’
সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় করার সময় আইজিপি আরও বলেন, ‘এ ধরনের কোনও সম্মেলন আয়োজনের সময় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও গোয়েন্দা সংস্থাগুলোর সম্মিলিত সমন্বয়ের মাধ্যমে সিদ্ধান্ত নিয়ে আয়োজক সংস্থার চাহিদা পূরণ করা হয়। কিন্তু মাত্র তিন দিন আগে এমন একটি অনুষ্ঠান আয়োজনের কথা বলে নিরাপত্তা চাইলে তা দেওয়া সম্ভব নয়। তারা ঢাকা জেলার এসপির কাছে সম্মেলনের নিরাপত্তা চেয়েছেন। এসপি তাদের জানিয়েছেন, এত বড় অনুষ্ঠানের নিরাপত্তা তিনি একা দিতে পারবেন না। প্রস্তুতির জন্য সময় লাগবে। অথচ এখন তারা বিভিন্ন জায়গায় বলে বেড়াচ্ছেন সরকার তাদের সম্মেলন বন্ধ করে দিয়েছে। কিন্তু এটা সত্য নয়। সরকার বন্ধ করেনি। তাদের অনুষ্ঠানের ব্যাপারে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানেও না। তারা সবাইকে অন্ধকারে রেখেছিল।’
আইজিপি সাংবাদিকদের আরও বলেন, ‘বাংলাদেশে একটার পর একটা আন্তর্জাতিক ইভেন্ট অনুষ্ঠিত হচ্ছে। কয়েকমাস আগেও আমরা ইন্টার পার্লামেন্ট ইউনিয়নের (আইপিইউ) সম্মেলন করলাম। চিফ অব পুলিশ কনফারেন্সও করেছি। এ ধরনের ইভেন্টের নিরাপত্তা দেওয়ার মতো সক্ষমতাও রয়েছে বাংলাদেশ পুলিশের। কিন্তু তার জন্য প্রস্তুতির দরকার। কাল (শুক্রবার) থেকে আন্তর্জাতিক পানি সম্মেলন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এজন্য আমরা একমাস আগে থেকে প্রস্তুতি নিচ্ছি। আন্তর্জাতিক ইভেন্টের ব্যাপারে হাই সিকিউরিটি নিশ্চিত করতে অনেক আগে থেকে প্রস্তুতি নিতে হয়।’

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked with *

সর্বশেষ সংবাদ

সর্বাধিক মন্তব্য